বাঙ্গালী
Thursday 20th of June 2019
  55
  0
  0

সমালোচনা করলেই বলছে দেশদ্রোহী, পাকিস্তানি: মমতা

সমালোচনা করলেই বলছে দেশদ্রোহী, পাকিস্তানি: মমতা

নিয়ম করে প্রতিটি সভায় এয়ার স্ট্রাইকের প্রসঙ্গ তুলছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তার কথায়, আঘাত লেগেছে পাকিস্তানের, কিন্তু শোরগোল করছে ভারতের কয়েকজন।

আবনা ডেস্কঃ পুলওয়ামা ঘটনার পর থেকেই উত্তপ্ত ভারতের রাজনীতির। পাকিস্তানের মাটিতে এয়ার স্ট্রাইকের পর মোদির নামে জয়ধ্বনি দিচ্ছে বিজেপি। তার পাল্টা এয়ার স্ট্রাইকের আসল তথ্য প্রকাশের দাবি পাল্টা চাপ দিচ্ছে বিরোধীরা। বিরোধীদের এমন অবস্থানের প্রেক্ষিতে বিজেপিও পাল্টা প্রচারে নেমে পড়েছে।
নিয়ম করে প্রতিটি সভায় এয়ার স্ট্রাইকের প্রসঙ্গ তুলছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তার কথায়, আঘাত লেগেছে পাকিস্তানের, কিন্তু শোরগোল করছে ভারতের কয়েকজন। মোদি বিরোধিতা করতে গিয়ে দেশের বিরোধী হবেন না।
মঙ্গলবার (৫ মার্চ) নবান্ন থেকে বেরানোর সময় পাল্টা সেনাকে নিয়ে নরেন্দ্র মোদির বিরুদ্ধে রাজনীতি করার অভিযোগ করলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বলেন, আমরা দেশের পক্ষে। আমরা জনগণের পক্ষে। আমরা মানুষের। কিন্তু আমরা মোদিবাবুর বিপক্ষে। উনি প্রধানমন্ত্রী পদের লজ্জা। তাকে সমর্থন দিচ্ছেন কিছু ন্যাশনাল চ্যানেল। হয়তো ভিকটিম অব দ্য সারকামটান্সেস হবে।
দিন কয়েক আগে এয়ার স্ট্রাইকে কত মারা গেছে তা জানতে চেয়েছিলেন মমতা। তিনি বলেন, দেশের লোক প্রকৃত সত্য জানতে পারছে না। এর জন্য যা ইচ্ছে শাস্তি দিতে পারি। সাধারণ নাগরিক হিসেবে কথা বলার অধিকার আমার আছে।
এর পাশাপাশি পুলওয়ামার ঘটনায় কেন্দ্রের ব্যর্থতার কথাও উল্লেখ করেন মমতা। তার প্রশ্ন, কেন পুলওয়ামাতে ঘটনা হল? কেন রাজনীতি হবে? কে দায়ী? কেন বাঁচানোর চেষ্টা হল না?
মমতার কথায়, সেনাদের রক্ত নিয়ে রাজনীতি করা যাবে না। তাদের রক্ত নিয়ে যারা রাজনীতি করছে তাদের নিন্দা করি। আমরা দেশবাসীর পক্ষে, সেনাদের পক্ষে, আমরা শান্তির পক্ষে, আমরা দাঙ্গা নয়, শান্তির পক্ষে।
মমতা আরও বলেন, বিজেপি পার্টিটাকেও প্রাইভেট কোম্পানি করে দিয়েছে মোদি-শাহ। ওই দলে কারও কোনও মূল্য নেই। ভয় দেখিয়ে চোখ রাঙিয়ে দমন করছে বিরোধীদের। যেই সমালোচনা করছে, তাকে পাকিস্তানি ও দেশদ্রোহী বলে দেওয়া হচ্ছে।
মমতা মনে করিয়ে দেন, আমরা হিন্দুস্তানি, এটা গর্ব। বাংলার মাটিতে জন্মগ্রহণ করেছি, এটা আমাদের গর্ব। বাংলার আমার বাবা স্বাধীনতা আন্দোলন করে এসেছিলেন। দেশপ্রেমের শিক্ষা তাদের কাছে নেব না, যারা গান্ধীজিকে খুন করেছে।

  55
  0
  0
امتیاز شما به این مطلب ؟

latest article

      ইসরাইলি হামলায় দুই হামাস যোদ্ধাসহ ৪ ...
      মিয়ানমারের রাখাইনে সেনাবাহিনীর ...
      প্রাইভেট ভার্সিটির মান ও ডিগ্রি ...
      ব্রিটেনে প্রতিদিন গড়ে ২টি মুসলিম ...
      আইএসআইএল যুক্তরাষ্ট্রের সৃষ্টি
      রাষ্ট্রীয় মদদেই মিয়ানমারে রোহিঙ্গা ...
      মিশরের ইখওয়ানুল মুসলিমিনের ...
      কেন ইসরাইলের বিরুদ্ধে যুদ্ধে নামছি ...
      সৌদির অনুগত হয়েও শেষ রক্ষা হল না: ...
      শ্রীলঙ্কা হামলার দায় স্বীকার করে ...

 
user comment