বাঙ্গালী
Wednesday 27th of March 2019
  2038
  0
  0

'ইরান ইসরাইল বিরোধী বলেই ক্ষুব্ধ সৌদি-রাজ'

'ইরান ইসরাইল বিরোধী বলেই ক্ষুব্ধ সৌদি-রাজ'

৭ এপ্রিল (রেডিও তেহরান): লেবাননের জনপ্রিয় ইসলামী প্রতিরোধ আন্দোলন হিজবুল্লাহর মহাসচিব সাইয়্যেদ হাসান নাসরুল্লাহ বলেছেন, ইসলামী ইরান ইহুদিবাদী ইসরাইলের শত্রু বলেই সৌদি সরকার তেহরানের সঙ্গে শত্রুতা করছে।


তিনি গতকাল (সোমবার) এক সাক্ষাৎকারে এই মন্তব্য করেছেন।


হিজবুল্লাহর মহাসচিব বলেছেন, মধ্যপ্রাচ্যের সংঘাতগুলো পুরোপুরি রাজনৈতিক চরিত্রের হওয়া সত্ত্বেও ধর্মীয় মতপার্থক্যগুলোকে এইসব সংঘাতে অপব্যবহার করা হচ্ছে। তিনি দখলদার ইহুদিবাদী ইসরাইলের সঙ্গে হিজবুল্লাহর জিহাদকে তিনি ন্যায়সঙ্গত সংগ্রাম বলে উল্লেখ করেন।


সিরিয়ার আল-আখবারিয়া টেলিভিশনকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারের হিজবুল্লাহর মহাসচিব বলেন, " শিয়া মুসলমান হওয়া সত্ত্বেও ইরানের ক্ষমতাচ্যুত রাজা মুহাম্মাদ রেজা পাহলাভির সঙ্গে সৌদি সরকারসহ আরব সরকারগুলোর চমৎকার সম্পর্ক ছিল, কারণ মার্কিন মোড়লীপনার আওতায় সে ছিল তাদের মিত্র। কিন্তু যখন ইরানে ইসলামী বিপ্লব ঘটে এবং মার্কিন সরকার ও ইসরাইলের সঙ্গে ইরানের সম্পর্ক ছিন্ন হয়ে যায় তখনই মাজহাবগত বিভেদ বা শিয়া-সুন্নি মতপার্থক্যের শ্লোগান তোলা হয়। তিনি বলেন, ইহুদিদের সঙ্গে হিজবুল্লাহর কোনো সমস্যা নেই, সমস্যা হলো সেইসব বর্ণবাদী ইহুদি তথা ইহুদিবাদীদের সঙ্গে যারা আমাদের ভূখণ্ড দখল করে রেখেছে।"


হিজবুল্লাহর মহাসচিব আরো বলেছেন, সৌদি সরকার ইয়েমেনের ওপর হারানো কর্তৃত্ব ফিরিয়ে আনার জন্যই দেশটির ওপর যুদ্ধ চাপিয়ে দিয়েছে এবং সেখানে ইরানি কর্তৃত্বের যে দাবি করা হচ্ছে তা বানোয়াট। ইয়েমেনের জনগণ স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে মাথা উঁচু করে দাঁড়াতে চায় এবং তারা এ অঞ্চলের জাতিগুলোর স্বার্থ ও প্রতিরোধ আন্দোলনকে সমর্থন করে বলেও সাইয়্যেদ হাসান নাসরুল্লাহ মন্তব্য করেন।


উল্লেখ্য, ইয়েমেনের বিপ্লবী সরকার ও সেখানকার জনপ্রিয় ইসলামী প্রতিরোধ আন্দোলন আনসারুল্লাহও হিজবুল্লাহ ও ইরানের মতোই দখলদার ইসরাইলের কট্টর বিরোধী এবং তারা ফিলিস্তিনিদের সংগ্রামকে সমর্থন জানিয়ে আসছে।

 

সাইয়্যেদ হাসান নাসরুল্লাহ আরো বলেছেন, ইয়েমেনের মানুষ আলে সৌদের বিরুদ্ধে দিনে দিনে কঠোর প্রতিরোধ গড়ে তুলছে এবং মার্কিন মদদপুষ্ট পারস্য উপসাগরীয় রাজতন্ত্র দেশটিতে শোচনীয় পরাজয় বরণ করবে।

 

সিরিয়ার আল- আখবারিয়া টেলিভিশন চ্যানেলকে দেয়া সরাসরি সাক্ষাৎকারে হাসান নাসরুল্লাহ আরো বলেন, অনুন্নত ইয়েমেনে ভয়াবহ বোমা হামলা চালিয়ে সৌদি শাসক এবং তাদের আঞ্চলিক ও পশ্চিমা মিত্ররা কোনো লক্ষ্যই অর্জন করতে পারে নি। সৌদি আরব যদি ইয়েমেনকে নিয়ন্ত্রণ করার চেষ্টা ত্যাগ করে তবে দেশটি আমেরিকার নিয়ন্ত্রণেরও বাইরে চলে যাবে; ওয়াশিংটন তা হতে দেবে না বলে জানান তিনি। হিজবুল্লাহ মহাসচিব বলেন, প্রতিবেশী দেশটির ওপর নিয়ন্ত্রণ পূনঃপ্রতিষ্ঠা করতে চাইছে সৌদি আরব।

 

আল-কায়দা এবং তাকফিরি সন্ত্রাসীগোষ্ঠী আইএসআইএল-এর প্রতি সৌদি আরব খোলাখুলি সমর্থন দিয়েছে উল্লেখ করে হাসান নাসরুল্লাহ বলেন, এ সব সন্ত্রাসীগোষ্ঠী খোদ রিয়াদের জন্যও হুমকি।#

#


source : bangla.irib.ir
  2038
  0
  0
امتیاز شما به این مطلب ؟

latest article

      ইসরাইলি বাহিনীর হামলায় হামাসের ২ ...
      'গাজায় ইসরাইলি বিমান হামলার শরিক ...
      ইয়েমেনে শিশুদের ওপর হামলায় মার্কিন ...
      আগ্রাসীদের রাজধানী আর নিরাপদ থাকবে ...
      গ্রিসে ইসলামের প্রসার বাড়ছে
      ঘুড়ি ও বেলুনে অসহায় ইসরাইলের নয়া ...
      সৌদি জোটের বিরুদ্ধে বিস্তর অভিযোগ
      ইয়েমেনিদের হামলায় ৫৮ সৌদি সেনা নিহত
      শুক্রবার দেখা যাবে শাওয়াল মাসের নতুন ...
      ইসরাইল-বিরোধী সংগ্রাম জোরদারের শপথে ...

 
user comment